ভাবলেশ; অবশেষ

ঘুমের গন্ধে মাতাল আমি, ঘুমাব না এই আমার দাবী
রাতগুলো বেসরম, নির্লজ্জ, --কাপড় খোলার ফন্দি করে বড্ড
দু শরীরে চলছে খেলা, হাটুর মাঝে হাটুর মেলা
দূর থেকে ছাই পড়ে চোখে , কান্নার আলো ঐ আকাশে
এই ভেবে সব হাহাকার যায় থেমে , দু;খ কিসে ?
চান্নি রাইতে পিরীত মাগে, পিরীত মাগে অমাবশ্যা
দুঃখ ছাড়া ভালোবাসার আর নাই কোন হিসসা
ও গোলাপী রঙের শাড়ি,
পরে ফেল না তাড়াতাড়ি
খুলবে বলে ধরছে বায়না
চোখের ভেতর চোখের আয়না
কেউ কি দেখে এমন করে
দিন যত যায় পেছন পড়ে
কে কারে যে ব্যথা পরায়
চোখের আড়াল সবই হারায়
পায়ের পাতায় নখের মল
ঝুনুঝুনু ডাকে , আয় পরিমল
পরিবানু সাজবে বলে
হাতে নিলো মেহেন্দি সবে
কোথা হতে একরাশ মেঘ
ঝাপ্টা দিয়ে নিলো আবেগ
সেই থেকে তার একলা হাঁটা
কোমর দুলায় দুঃখ ভোলা
কারে দেখাস এমন করে
নিজের শরীর ভ্রমর করে
ফুলতো সবই শয্যা সাথি
এই নিয়ে যা সুপ্রভাতি
আছি তেমন যেমন ছিলাম আগে
ভিক্ষুকে কি ভিক্ষা ছাড়া আর কিছুই মাগে?

এক গরীব প্রেমিকের জন্য ঈদের শুভেচ্ছা

0 মন্তব্য(গুলি):

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

About