একতারা

নিজস্ব হৃৎপিন্ড আজ অদ্ভুত উড়নচন্ডী
বাউন্ডুলে, লক্ষ্মীছাড়া, উদ্বাস্তু
উদয়াস্ত যা - যা ভেবে মরি।
পরম বালখিল্যতায় জড়িয়ে ধরতে চায় গলা
নির্বোধ হাওয়া -
অথচ সোজা রাস্তা ছিলো বুকের মধ্যে
পাতায় সবুজ সম্মিলিত কাঁচা শব্দে
গলা জড়িয়ে ডেকে ছিল আমায় - ' রাধা '
আধখানা  তার ভাঙা গলা
আধখানা  তার সাধা।
তবু শিরায় অনুভব  করি একতারার সঙ্গীত
নিসর্গ যে এক নিপুণ জেলে!
নিস্তরঙ্গ জ্যোৎস্নায় ফাঁদ পেতে রাখে
মনে হয় বড়ো অন্তরঙ্গ! নাঃ
সাধা গলা দেয়না সাড়া

নিঃশব্দ নিশির মতো নিশিত।

0 মন্তব্য(গুলি):

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

About