শেষ বিন্দুতে

শব্দতরঙ্গে কম্পন জাগে।
দূর দিগন্তরেখায় অচেনা এক বর্ণআলেখ্য ......
কুয়াশা ভেঙ্গে অঙ্কুরিত হয়ে ওঠে একটা ছায়া অথবা শব্দ ।
কোথাও পাতার বাঁশি বেজে ওঠে ;
ধ্রুপদী সুরের মীড়ে মিশে আছে
এক অতলান্ত সবুজ ঘ্রাণের মতো নীরবতা ;
স্রোতস্বিনী ঢেউয়ের মতো বিলম্বিত এক লয় গড়িয়ে যাচ্ছে
মহাসমুদ্রের দিকে ।

তুমি নুপুর নও ।
নদী নও।
রং-তুলিও নও ।
তবু বাতাসে পেন্সিল ঘুরিয়ে এঁকে নিচ্ছো এক শূন্যবলয়
সেই বৃত্তের ভেতরে আরেক বৃত্ত ;
এভাবে একটা বিন্দুতেই শেষ।এবং

স্থির।

0 মন্তব্য(গুলি):

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

About