নদী ও পাহাড় 

 
নদীর কাছে
  আমি রোজই আসি,  
তা বলে এমন তো নয়
 
যে পাহাড় আমি ভালবাসি না!
 
আমি নদীর জলে ভাসিয়ে দিই আমার স্মৃতি
 
ঝরা পাতার মত
 
ঢেউয়ে ভেসে ভেসে তারা মিশে যায় সাগরে।
 
নদীর জলে আমি ঢেলে দিই প্রেম,
 
চুপি চুপি বলে যাই মনের গোপন কথা
 
কৈশোরের পাপ...
 
নদী ধুয়ে দেয় সব। আমি নগ্ন হই
 
ডুব দিই মেঘলা নদীর বুকে......
 
 
পাহাড়কে আমি দূর থেকে দেখি।
 
পশ্চিমের জানালা খুলে দেখি সবুজ পাহাড়...
 
পাহাড়ের গায়ে লেগে থাকা মেঘ,
 
ওর কাছে পাঠিয়ে দিই আমার মন খারাপের দিন।
 
মেঘ বৃষ্টি হয়ে ঝরে, পাহাড় ভেজে,
 
দূর আকাশের গায়ে ফুটে ওঠে রামধনু ছবি।
 
পাহাড় স্বপ্নে আসে, বারবার ডাকে
 
আমি দরজা খুলে পা বাড়াই, একপা একপা করে
 
নির্ভুল চলে যাই নদীটির পাশে।
 
নদীর জলে পা ডুবিয়ে বলি, “ও নদী, যাবো?”
 
নদী হাসে, কুলু কুলু চলে যায় নেচে...
 
 
পাহাড়ের কাছে তাই আমার যাওয়াই হয় না,
 
আমি দূর থেকে দেখি-
 
সবুজ পাহাড়, মেঘ আর রামধনু রঙ......
 

1 মন্তব্য(গুলি):

মিজান ভূইয়া বলেছেন...

ভীষন ভাল লাগা.…অনেক উজ্জ্বল একটি কবিতা..…পড়ে মুগ্ধতায় ভরে গেল মন..……!

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

About