উপত্যকা .....

কবিতা আমার সন্তান নয় -
                    আত্মাকে চিবিয়ে খায় রোজ !
আমার ক্লেদ শুষে
অনায়াসে বাড়িয়ে দেয় একাকীত্বের ক্ষত ,
হাড় থেকে নিবিড় একাগ্ৰতায়
ছাড়িয়ে নেয় খাওয়া-পরার সুখ আছে যত ,
রক্ত দিয়ে ল্যাপে পোঁছে জমাট আঁধার -
যা কখনও ছিল না - সামনে পিছনে আমার ,
আলোর উৎসমুখে ফেলে আসে ছাই -
যদি আমি হাসতে-হাসতে কাঁদতে ভুলে যাই ,
কি নিপুন চাতুর্যে আমার আবদারী সুখে
        ঘেঁটে দেয় ভুল বোঝার পূতীগন্ধময়তা !
তারপর ,
বিড়ালী আদরে গায়ে গায় ঘষে
জানান দেয় ভালোবাসার মানে স্বার্থহীনতা ....

রঙ-তুলি নিয়ে জন্মাইনি আমি ,
শব্দের জোড়াতালি -
                               কথার এজমাইলি ঘাটে ।
আমার যে কথারা -
       পায়নি শরীর চটা ওঠা বাস্তবতায় ,
        তাকে একদিন এঁকে দেবো
                      ভালোবাসার শরীরী ক্যানভাসে .......
.
.



0 মন্তব্য(গুলি):

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

About