গোপন ক্ষয়...

ঝরে যাচ্ছে জল গোপনে গোপনে
সারা বছর মেঘ ঘনিয়ে থাকে
সে কথা শুধু ঘোলাটে দু'চোখ জানে।
কেন এতো সংশয়ের কাঁটা জীবন
সবুজ বসতিতে পা রাখতে রাখতে
হুড়মুড় করে ঘাড়ে এসে পড়া
কোষ খেকো রাক্ষস প্রাণঘাতি
ঈশ্বরের কি গড়া?

হা জননী বসুন্ধরা....
প্রকৃতি দিয়েছ, রক্তপুকুর দিয়েছ
দিয়েছ চির নিবেদিত জীবন
দিতে পারলে না একটি দিনেও
ইচ্ছের স্বাধীন চরণ

ভেঙে যায় শ্বাস নেবার শপথ
শুদ্ধ মনের ঘরে
থেকে যায় বিপন্ন সম্পর্কের অভিজাত
বশীকরণ
শুধু অনিদ্রার কান্না বুকে নিয়ে কেউ কেউ
লিখে যায় তাঁর সংক্রামিত আয়ূরেখার
অসহ্য দিনলিপি আর....
প্রতিদিন তাঁর উঁচু মুখে এসে পড়ে অধিকারের
চরম নখ-আঁচড়

ঈশ্বর বলে যায় গলে যাওয়াই মোমের চির নিয়তি।

0 মন্তব্য(গুলি):

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

About