খবর

বলেছিলে  শোনো ও মেঘ !
খবর দিও, ঝরা'য়-ধারায় সুরের নেশা লাগলে...
ঐ মন পটুয়া কাব্যে-কথায় ফোঁটায় শ্রাবণ আঁকলে "

বলেছিলাম " শোনো আবেগ !
আষাঢ় এলে,বর্ষা সেরে সাতরঙা সে রঙধনু,
উড়াল দেবে মাখিয়ে ডানায় 'মন কেমন' এর লাল অণু।"

আষাঢ় এল.....
তারপরে তো বৃষ্টি এল পশলা তে।
ধর্মে-মর্মে,আগুন খিদে বিস্ফোরক এক মশলাতে।
শুনছ তুমি ?....
সাড়ে তিনেও শরীর 'নারী'? বুঝছি না ।
আঁচড়-কামড়,ভেদন-জ্বালার পিশাচ কারণ,খুঁজছি না !
অহং ছিল....,
মাতৃত্বের স্নেহে,ক্ষমায় পূর্ণ
  মন।
আজ সূচবিদ্ধ ছিন্ন নাড়ীর জিজ্ঞাসু চোখ, " মা এমন? "

এই এ 'সময়'....,
গোলাপ লালে পাপড়ি আঁকার লগ্ন নয়।
খবর মানেই রক্তখবর,রামধনুতেও ধনুকবাণের মৃত্যু ভয়।
দেখছো 'আবেগ'....,
আঁকতে চাইছি যতই বেরঙ স্বচ্ছতা,
অশ্রু ছাড়া সব প্রবাহেই রঙবিলাসীর হিংস্র রঙিন মত্ততা।
নাহ্, চিঠি নয়.....
স্তব্ধ কলম।দেওয়ার মত খবর কই ?
খবর দেব, সভ্যতাতে, সু'শিক্ষাতে আদৌ যদি 'মান-হুঁশ' হই।
     

0 মন্তব্য(গুলি):

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

About