ঈশ্বর

শেষ সত্য জানা হয়ে গেলে
ক্যানভাস ছেড়ে উড়ে যেতেন কাল্পনিক ঈশ্বর ৷
রহস্য থাকবেই যতোই এগোও
কেননা মোড়কের ভেতরেও মোড়ক আছে
যেভাবে অন্ধকারের ভেতরেও থাকবে
কালজয়ী আরও আরও অন্ধকার ৷
রুমালের গিঁট খুলে দেখা
মাঝে মাঝে ভীষণই বোকামি-
তার চেয়ে বিশ্বাস রাখা ভালো
গ্রন্থির ভেতরে যা আছে অনাবিস্কৃত
চোখের সাধ্যি নেই সেখানে প্রবেশ করে ৷
আনেকটা পাখিই বলে ভ্রম হয় ঠিকই
কিন্তু কিছু রঙ ছাড়া কিছুই থাকে না-
শিল্পীর তুলির কিছু কারসাজি থাকে
আর সেখানেই রহস্য তৈরী হয়
সেখানেই বসে থাকে পাখি ৷
বাইরে থেকে জল দাও- দানাশস্য দাও
রাধাকৃষ্ণ শোনো তফাতে দাঁড়িয়ে-
খাঁচার দরজা যদি খুলে দেখতে যাও
কিছুই পাবে না-
আরও কিছু রহস্য ভেতরে রেখে
ডানা মেলে উড়ে যাবেন স্বয়ং ঈশ্বর ৷

2 মন্তব্য(গুলি):

Shankar Bandyopadhyay বলেছেন...

ভাল লাগল।

Shankar Bandyopadhyay বলেছেন...

ভাল লাগল।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

About